MS Dhoni

ব্যুরো নিউজ, ২১ মার্চ: শুক্রবার ২২ মার্চ শুরু হচ্ছে আইপিএল। চেন্নাইয়ে উদ্বোধনী ম্যাচে খেলবেন ধনির দল চেন্নাই সুপার কিংস ও ব্যাঙ্গালুরু। তবে তার আগে আধ ঘণ্টা বর্ণাঢ্য উদ্বোধনী অনুস্থানে থাকছেন এ আর রহমান, গায়ক সনু নিগম, বলি তারকা অক্ষয় কুমার, টাইগার শ্রফ প্রমুখ। প্রতিটি দলের ক্যাপ্টেনরাও বিশেষভাবে তাদের উপস্থিতি জানাবেন মাঠে। তবে, ৪২ বছর বয়সে মহেন্দ্র সিং ধনি যে মূল আকর্ষণ তা মানছেন বহু ক্রিকেট কর্তা থেকে সাধারণ মানুষও।  আর তাঁকে দেখতেই মাঠ ভরাবেন দর্শকরা।  ধনির অবশ্য কৌশল কি হবে সেদিকেই তাকিয়ে থাকবেন আইপিএল-এর সব খেলোয়াড় ও কর্তারা। কারন, দক্ষ ক্রিকেটার ও ক্যাপ্টেন ধনি কোন দলের জন্য কি নয়া কৌশল নেবেন সেটাই দেখার। তবে তার সঙ্গে খেলে আসা দীর্ঘ দিনের ক্রিকেটাররা বলেছেন, ধনি নতুন ক্রিকেটারদের জায়গা করে দেওয়ার বিষয়ে সব সময় লক্ষ্য রাখেন।  অত্যান্ত মৃদুভাষী রাঁচির এই ক্রিকেট তারকা সব সময়ী তার বিরোধী দলকে ইঞ্চিতে ইঞ্চিতে মেপে রাখেন। উইকেটের পেছনে দাঁড়িয়ে প্রীতিটি বোলারকে প্রয়োজনে নির্দেশ দেন। ফিল্ডিং সাজাতে পরামর্শ দেন বোলারকে। দীর্ঘ অভিজ্ঞতায় ধনি যে কোনও ব্যাটসম্যানকে এখনও তার ক্রিকেট বুদ্ধি দিয়ে কাবু করতে বা তাঁকে নিয়ন্ত্রনে রাখতে পারেন। কোন ব্যাটসম্যানকে কী বল করতে হবে সে পরামর্শও দেন ধনি।

আইপিএলের আগেই বিরাটকে দেখা গেল নতুন রূপে!

Advertisement of Hill 2 Ocean

প্রচারে নেমে অধিরের গড় থেকেই অধিরকে চ্যালেঞ্জ ইউসুফ পাঠানের

তবে, রেলের টিকিট টেকার থেকে অসামান্য ক্রিকেটার হয়ে ওঠা ধনি ডুবে থাকেন ক্রিকেটের মধ্যেই। তার দীর্ঘ দিনের ক্রিকেট সঙ্গি ইরফান পাঠান জানিয়েছেন, শুধু ক্রিকেট খেলাই তার জীবনের সব নয়, কারন  দূরদর্শী ধনি বুঝেছেন যে ক্রিকেট ছাড়লে জীবনটা শুন্য হয়ে যেতে পারে তাই ক্রিকেটের পাশাপাশি নানা কাজে তিনি ব্যস্তও থাকেন। মোটর বাইকের প্রতি তার ভীষণ আগ্রহ। রাঁচির বাড়িতে তার কালেকশানে রয়েছে মূল্যবান গাড়ি। সেখানে হারলে ডেভিডশন থেকে এনফিল্ড ও বিদেশের বহু গাড়ি তার বাড়িতেই রয়েছে। সেগুলির পরিচর্যাও করেন নিজের হাতে। প্রায়ই সেগুলির যে কোনও একটি নিয়ে রাস্তায় বেড়িয়ে পড়েন। ধনি রাস্তায় বেরলে যতই নিরাপত্তা বেষ্টনী থাক মানুষের আকর্ষণ থাকে তার দিকেই। ধনির ক্রিকেট জীবনে সাফল্যের সংখ্যাটা যথেষ্ট ঈর্ষাদায়ক। তার নেতৃত্বে ভারত জিতেছে ২০০৭- এর টি-২০ বিশ্বকাপ, ২০১১ সালের ওয়ান ডে বিশ্বকাপ, ভারত তার সময়ই টেস্ট ক্রিকেটে র‍্যাঙ্কিংয়ে পৌঁছেছিল শীর্ষে। আবার নিজের শরির যেভাবে ধরে রেখেছেন তাও দেখার মত। এখনও মাঠে ব্যাট হাতে নেমে তার হ্যালিক্যাপ্টার শর্ট দেখলে দর্শকরা মনে করেন পয়সা উশুল। এখনও রমহর্ষক ফিনিশিনিংয়ে ধনি ব্যাট হাতে নামলে দর্শকরা দু চোখের পাতা এক করার ফুরসৎ পায়না। ভারতীয় সেনা বাহিনীর ট্রেনিংও নিওয়েছেন আন্তরিক ভাবে। সেনা বাহিনীর সেই পদ সাম্মানিক হলেও প্রশিক্ষনে তিনি গাফিলতি দেখাননি। বরং, সেনাদের সঙ্গেই পাল্লা দিয়ে ভারতের বিভিন্ন সিমান্তবর্তী এলাকায় শিবিরে সপ্তাহের পর সপ্তাহ কাতিয়েছন। ফলে দেশপ্রেমিকতাও তার মধ্যে দেখা গেছে। আর এই সব নিয়ে যে নিয়মানুবর্তিতা তার ক্রিকেট মাঠে দেখা গেছে তার তুলনা মেলা ভার। তাই অবসরের পরেও ধনিকে মনে হয় ভারতিয় দল এখনও তাঁকে টেস্ট, ওয়ান ডে, টি- ২০ তে জায়গা দিলে তিনিই হবেন সেরা আকর্ষণ।

 

 

 

বিশ্ব জুড়ে

গুরুত্বপূর্ণ খবর

বিশ্ব জুড়ে

গুরুত্বপূর্ণ খবর