BJP Dilip Ghosh

শর্মিলা চন্দ্র, ২ এপ্রিল: বিতর্কিত মন্তব্যের কারণে সোমবারই দিলীপ ঘোষকে সতর্ক করেছে নির্বাচন কমিশন। তার ২৪ ঘণ্টা কাটতে না কাটতে ফের বেফাঁস মন্তব্য করলেন বিজেপি প্রার্থী দিলীপ ঘোষ। উত্তরবঙ্গে প্রাকৃতিক বিপর্যয় নিয়ে সোমবারই দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘উত্তরবঙ্গ থেকে শুরু হচ্ছে ঝড়। ভোট ওদিক থেকে শুরু হচ্ছে, বিজেপির ঝড় শুরু হয়ে গেছে। তাতেই লন্ডভন্ড হয়ে যাচ্ছে সব।ওখানেই তো প্রথম দফায় ভোট।’

টলি অভিনেত্রী সায়ন্তিকা বন্দ্যোপাধ্যায় গেলেন মদন মিত্রের বাড়ি! নেপথ্যে কোন কারণ?

Advertisement of Hill 2 Ocean
‘মানুষের পাশে দাঁড়ানোর মানসিকতা নেই’ অভিষেকের নিশানায় দিলীপ

যদিও দিলীপ ঘোষের এই মন্তব্যের সমালোচনা করেছে তৃণমূল। এই বিষয়ে তৃণমূলের সেকেন্ড ইন কমান্ড অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘একটা প্রাকৃতিক দুর্যোগ নিয়ে ব্যঙ্গ-বিদ্রুপ করা হচ্ছে। রাজনীতি করা হচ্ছে। বলা হচ্ছে, বিজেপির ঝড়ে সব লন্ডভন্ড হচ্ছে। অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক। এইসব নেতার ন্যূনতম মানসিকতা নেই মানুষের পাশে দাঁড়ানোর। দুর্যোগের সময়ে মানুষের সাহায্য করার।’

যদিও এরপরেও থেমে থাকেননি বিজেপি প্রার্থী দিলীপ ঘোষ। মঙ্গলবার বর্ধমানের বাদামতলার এলাকায় প্রচারে বেরিয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন , ‘ঝড় হলেই তৃণমূলের পোয়া বারো। ত্রাণে যা আসবে, ঝেড়ে ফাঁক করে দেবে। ঝড় হোক, বন্যা হোক, ওরা চায় এসব হোক। তাহলেই কামাই হবে। সরকারে যারা আছে, তাদের দায়িত্ব এখন যাঁরা ক্ষতিগ্রস্ত, তাঁদের পাশে দাঁড়িয়ে মনোবল বাড়ানো, ক্ষতিপূরণ দিয়ে ফের জীবনে ফিরিয়ে নিয়ে আসা। আমরা, বিরোধীরা মানুষের সঙ্গে থাকি। কিন্তু কথায় কথায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মতো টাকার ফিরিস্তি দিই না।’

এর সঙ্গে তিনি অভিযোগ করেন, আমফানের মতো ঝড়ে কেন্দ্র দিয়েছে। কিন্তু তৃণমূল কর্মীদের অ্যাকাউন্টে সেই টাকা গেছে। কেন্দ্রের পাঠানো টাকা লুঠ হয়েছে বলে অভিযোগ করে পঞ্চায়েতের প্রধান, উপপ্রধানদের দিকে আঙুল তোলেন দিলীপ ঘোষ।

বিশ্ব জুড়ে

গুরুত্বপূর্ণ খবর

বিশ্ব জুড়ে

গুরুত্বপূর্ণ খবর